পিঁপড়ে ও অন্যান্য

পলিয়ার ওয়াহিদ




পিঁপড়ে

জানো নাকি পিঁপড়ে কেন
লাইন ধরে চলে?
পরস্পরের মুখোমুখি
কী কথাটা বলে?

হঠাৎ যদি লাইনটাকে
ভেঙে দিলে তবে
খানিক পরে আবার দ্যাখো
লম্বা লাইন হবে!

লাইন বেঁধে চলা মানে
অনুসরণ করা
সবার শক্তি এককভাবে
বিশ্বকে যায় গড়া।

বাসা ছেড়ে অনেক দূরে
খাদ্য অন্বেষণে
জমা করে খাবার-দাবার
মণ কি মণ টনে।

পিঁপড়ে দেহে লেপ্টে আছে
সুগন্ধি হরমোন
চলার পথে তারা কি সব
সঙ্গী ও ভাইবোন!

যদি তুমি ভেঙে দিলে
সুদক্ষ তার লাইন
একটু পরে চলছে আহা
মাশ-আল্লাহ ক্লি—ফাইন।



প্রজাপতি

প্রজাপতি প্রজাপতি রঙিন ডানা মেলে
খেলার সাথী রেখে তুমি কোথায় চলে গেলে?

কততো করে তোমায় বলি দাও না দুটো ডানা
তোমার মতো উড়তে বুঝি আমার আছে মানা

ফুলের বনে উড়ে উড়ে কাটে তোমার বেলা
সাথী ছাড়া কেমনে বলো জমবে মজার খেলা?

বলতে পারো কোথায় পেলে এমন রূপের বাহার?
প্রজাপতি হেসে বলে—এই ধরণী যাহার।



বৃষ্টি মেয়ে মিষ্টি মেয়ে

বৃষ্টি মেয়ে মিষ্টি মেয়ে তোমার বাড়ি কোথায়?
মেঘের বাড়ি আকাশ ছাড়ি যখন আছি যেথায়।
বর্ষা মেয়ে ফর্সা মেয়ে সৃষ্টি তোমায় কোথায়?
মেঘের বাড়ি ব্যথা ভারি কাঁদি যখন যেথায়।

বাদল মেয়ে কাজল মেয়ে আসবে আমার সাথে?
কেন জানি অভিমানী কাঁদো যে দিন রাতে।
ঢলক মেয়ে ধবল মেয়ে আসলে তুমি কাছে
মন আকাশে ভূবন হাসে সবুজ ঘাসে গাছে।

সবার মুখে হাসি ফুঁকে আসলে যখন আজ
ময়ূর নাচে প্রাণ বাঁচে তুমিই সেরা নাজ।
ব্যাঙের ডাকে আকাশ পাকে সৃষ্টি হলো গান
শোকর করি হৃদয় ভরি মহান বিধির দান।